সোনাগাজীতে অগ্নিকান্ডে ৫ বসত ঘর পুড়েছে

সংবাদদাতা>>

সোনাগাজীতে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে বসতঘরসহ পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। গত শুক্রবার রাতে উপজেলার সদর ইউনিয়নের শাহাপুর এলাকায় অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে।এসময় আগুনে পুড়ে একটি গরু মারা গেছে। ক্ষতিগ্রস্থরা দাবি করেন অগ্নিকান্ডে তাদের প্রায় দশ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে।

পুলিশ, ফায়ার সার্ভিস ও স্থানীয় সূত্র জানায়, শুক্রবার রাতে উপজেলার চর সদর ইউনিয়নের সাহাপুর গ্রামের মিজি নাতির বাড়িতে রাত আড়াইটার দিকে হঠাৎ বৈদ্যুতিক গোলযোগ থেকে ওই বাড়ির আবদুল হকের ঘরে আগুনের সূত্রপাত ঘটে। মুহুর্তের মধ্যে আগুনের লেলিহান শিখা দাউদাউ করে জ্বলে পুরো বাড়িতে ছড়িয়ে পড়ে। এসময় বাড়ির লোজনের  চিৎকারে পাশ্ববর্তী লোকজন এগিয়ে এসে আগুন নেবানোর চেষ্টা করে। খবর পেয়ে উপজেলার সদর থেকে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা ঘটনাস্থলে গিয়ে স্থানীয়দের সহায়তায় দীর্ঘ দুই ঘন্টাপর আগুন নিয়ন্ত্রনে আনে। ততক্ষণে ওই বাড়ির আবদুল হকের ১টি বসত ঘর, ১টি রান্না ঘর, ১টি গোয়াল ঘর ও মো. আরিফের ১টি বসতঘর ও ১টি রান্না ঘর পুড়ে সম্পূর্ণ ভাবে ভূষ্মিভূত হয়ে যায়। এসময় আগনে পুড়ে আবদুল হকের ্একটি ষাঁড় মারা যায় এবং আরেকটি গাভী আগুনে পুড়ে আহত হয়।

ক্ষতিগ্রস্থ আবদুল হকের ছেলে নুরুল আফছার জানান, আগুনে ঘরবাড়ি ও গরু পুড়ে তাদের প্রায় ১০লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

উপজেলা ফায়ার সার্ভিস স্টেশন কর্মকর্তা ইসমাঈল হোসেন জানান, সাহাপুর গ্রামের মিজি নাতির বাড়িকেত বৈদ্যতিক গোলযোগ থেকে আগুনের সূত্রপাত ঘটেছে। এতে প্রায় ৮-১০লাখ টাকার  ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ নির্ণয় করা হয়েছে।

সোনাগাজী মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. হারুনুর রশিদ অগ্নিকান্ডে বসত ঘরসহ ৫টি ঘর পুড়ে যওয়ার সত্যতা নিশ্চিত করেন।

এদিকে শনিবার সকালে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মিনহাজুর রহমান, সদর ইউপি চেয়ারম্যান সামছুল আরেফিনসহ উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তার কার্যালয়ের প্রতিনিধিরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ক্ষতিগ্রস্থদের মাঝে নগদ অর্থসহ ত্রাণ সহায়তা প্রদান করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *