রত্না হত্যার দায় স্বীকার ভাড়াটিয়া যুবকের

নিজস্ব প্রতিনিধি >>

ফেনীতে শিরিন সুলতানা ওরফে রত্না (১৬) নামে এক এসএসসি পরীক্ষার্থীর হত্যার ঘটনায় গ্রেপ্তারকৃত যুবক দায় স্বীকার করে আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে। গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় ফেনীর জৈষ্ঠ্য বিচারিক হাকিম মো. সিরাজ উদ্দিন ইকবালের আদালতে এ জবানবন্দি রেকর্ড করা হয়।

 

 

 

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় শহরের নাজির রোড এলাকার আনোয়ার উল্যাহ সড়কের একটি বাসায় স্কুল ছাত্রী শিরিন সুলতানাকে গলাকেটে হত্যা করা হয়। এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ঘটনাস্থল থেকে আবদুল্লাহ আল নোমান ওরফে বিপ্লব (১৮) নামে এক যুবককে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে স্থানীয়রা। এ সময় পুলিশ হত্যাকান্ডে ব্যবহৃত একটি রক্তমাখা ছোরা উদ্ধার করেছে।

 

 

ঘটনার দিন রাতেই নিহতের মা সালমা আক্তার বাদী হয়ে আবদুল্লাহ আল নোমান ওরফে বিপ্লবকে আসামী করে ফেনী মডেল থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

ফেনী মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) কর্মকর্তা শহীদুল ইসলাম গ্রেপ্তারকৃত যুবককে শুক্রবার সন্ধ্যায় ফেনীর জৈষ্ঠ্য বিচারিক হাকিমের আদালতে হাজিরা করা হয়। সেখানে হত্যার দায় স্বীকার করে ১৬৪ধারা জবানবন্দি প্রদান শেষে তাঁকে ফেনীর কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।

 

 

ফেনী সদর হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) অসীম কুমার সাহা জানান, শুক্রবার দুপুরে ময়না তদন্ত শেষে পুলিশের মাধ্যমে নিহতের স্বজনদের কাছে লাশ হস্তান্তর করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *