সোনাগাজীতে ফের স্কুল ছাত্রী ধর্ষণের ঘটনায় যুবক গ্রেপ্তার

সোনাগাজীতে ফের এক সপ্তাহের ব্যবধানে ৯ম শ্রেনির এক স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে দায়ের করা মামলায় মোসলেহ উদ্দিন (১৯) নামে এক যুবক কে শুক্রবার রাতে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। সে উপজেলার মতিগঞ্জ ইউনিয়নের ভাদাদিয়া গ্রামের রাসেল মেম্বার বাড়ির রসুল আহম্মদের ছেলে। পুলিশ, এলাকাবাসী ও ধর্ষিতার পরিবার জানায়, আরএম হাট কে উচ্চ বিদ্যলয়ের ৯ম শ্রেনির ওই ছাত্রীকে বিদ্যালয়ে আসা-যাওয়ার পথে প্রেমের প্রস্তাবে উত্ত্যক্ত করতো মোসলেহ উদ্দিন। বিষয়টি তার পিতা রসুল আহম্মদকে জানিয়েও কোন প্রতিকার পায়নি ওই ছাত্রীর পরিবার। ওইর ছাত্রীর মা তাকে একা রেখে নানার বাড়িতে বেড়াতে গেলে শুক্রবার রাত ৮টার দিকে মোসলেহ উদ্দিন ঘরে ঢুকে ওই ছাত্রীকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। তার আত্মচিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে মোসলেহ উদ্দিনকে আটক করে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে। ছাত্রীর পিতা বাদি হয়ে সোনাগাজী মডেল থানায় মামলা দায়ের করেছেন। সোনাগাজী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) মো. কামাল হোসেন জানান, এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে এবং অভিযুক্ত আসামিকেও গ্রেফতার করা হয়েছে। প্রসঙ্গগত; গত শুক্রবার সন্ধ্যায় একই বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেনির এক ছাত্রীকেও ধর্ষণের ঘটনায় শাহীন মাহমুদ রিমন নামে এক যুবক গ্রেফতার হয়ে কারাগারে রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *