ফেনীতে মাদক মামলার আসামীর যাবজ্জীবন কারাদন্ড

ফেনী প্রতিনিধি, ৩১ জানুয়ারী

ফেনীতে রবিবার দশ বছর পূর্বের একটি মাদক মামলার আসামী দেলোয়ার হোসেন চুট্টুর যাবজ্জীবন কারাদন্ড ও দশ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ছয় মাস বিনাশ্রম কারাদন্ডে প্রদান করেন আদালত। অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ সৈয়দ মোঃ কায়সার মোশাররফ ইউসুফ এর আদালতে এ রায় ঘোষণা করা হয়।

আদালতের বেঞ্চ সহকারী রাজেন্দ্র কুমার ভৌমিক জানান, আজ রবিবার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ সৈয়দ মোঃ কায়সার মোশাররফ ইউসুফ এর আদালতে ১শ বোতল ফেন্সিডিল উদ্ধারের একটি মাদক মামলার রায় ঘোষণা করা হয়েছে। আসামী দেলোয়ার হোসেন চুট্টুর যাবজ্জীবন কারাদন্ড ও দশ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে ছয় মাস আরো বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন আদালত।তবে এ মামলার আসামী দেলোয়ার হোসেন চুট্টু পলাতক রয়েছে। এ মামলার ৮ জন সাক্ষীর মধ্যে চারজন সাক্ষ্য প্রদান করেছে। ২০২০ সালের ২২ নভেম্বর এ মামলার যুক্তিতর্ক শেষে রবিবার রায় ঘোষণার দিন ধার্য করেন আদালত।

রাষ্ট্রপক্ষের মামলা পরিচালনা করেন এপিপি বিজেন্দ্র কুমার কংস ভৌমিক। তিনি আরো জানান, ২০১০ সালের ২১ জুন ফেনী হাজারী কলেজ সংলগ্ন স্বপনের মোটরসাইকেল গ্যারেজের সামনে থেকে ১শ বোতল ফেন্সিডিল সহ দেলোয়ার হোসেন চুট্টুকে গ্রেফতার করেন তৎকালীন এএসআই মোঃ আশিকুর রহমান। এ ঘটনায় মোঃ আশিকুর রহমান বাদী হয়ে ফেনী সদরের শর্শদী ইউনিয়নের মধ্যম কাছাড় গ্রামের আবু আহম্মদের ছেলে দেলওয়ার হোসেন চুট্টুকে আসামী করে ফেনী মডেল থানায় মাদক আইনে মামলা দায়ের করেন। দেলোয়ার জামিন নিয়ে বর্তমানে পলাতক রয়েছে।

২০১০ সালের ২৫ জুলাই মামলা তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই সিরাজুল ইসলাম তদন্ত শেষে দেলোয়ারকে আসামী করে আদালতে চার্জশীট প্রদান করে। তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই সিরাজুল ইসলাম মামলা প্রমাণের জন্য ৮ জনকে সাক্ষী করেছেন। আদালত ২০১০ সালের ১৯ অক্টোবর চার্জ গঠন করে। এ মামলার ২০১৩ সালের ২৮ মে সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু হয়। ২০১৯ সালের ২৮ ফেব্রুয়ারী সাক্ষ্যগ্রহণ শেষ হয়। আদালতের বেঞ্চ সহকারী রাজেন্দ্র কুমার ভৌমিক আরো জানান, যথাসময় সাক্ষী না আসার কারণে মামলার বিচারকার্যে বিলম্ব হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *