ফেনীতে নাট্যাচার্য সেলিম আলদীন মেলার নামে লটারী-জুয়া অশ্লীলতা বন্ধের দাবী মানবন্ধন

ফেনীর সোনাগাজীতে নাট্যাচার্য সেলিম আল-দীনের নামে লটারী (জুয়া),অশ্লীলতা বন্ধের দাবীতে ‘আমরা ফেনী বাসী’র ব্যানারে মানববন্ধন করেছে ফেনীর সচেতন নাগরিকরা। এরপর জেলা প্রশাসক’র কাছে স্মারকলিপি প্রধান করা হয়।
সোমবার (০২এপ্রিল) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে ফেনীর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের সামনে আয়োজিত মানববন্ধনে সাংবাদিক ও মানবাধিকার কর্মী নাজমুল হক শামীমরে সঞ্চালনায় আতিয়ার সজলের সভাপতিত্বে একাত্বতা প্রকাশ ও বক্তব্য রেখে স্মারক লিপিতে সাক্ষর করেন ফেনী প্রেসক্লাবের সভাপতি মুহাম্মদ আবু তাহের ভ’ঞাঁ, ফেনী সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি জাহিদ হোসেন খসরু,সাংবাদিক শেখ ফরিদ রতন, মুহিবুল্লাহ ফরহাদ,কবি ইকবাল চৌধুরী,কাউন্সিলর মাহতাব মুন্না, সাংস্কৃতিক সংগঠক ফজলুল কাদের চৌধুরী শামিম, প্রাথমিক শিক্ষক সংগঠক তৌহিদুল ইসলাম তুহিন।
স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ইতিবাচকের সমন্বয়ক নাসিম আনোয়ার জাকি, সাংস্কৃতিক কর্মী বিধান চৌধুরী,কাজী পরাণ, বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কমের নিজস্ব প্রতিবেদক সোলায়মান হাজারী ডালিম, অনুরণন আবৃত্তি চর্চা কেন্দ্রের সমন্বয়ক এমএফ রহমান মিলন,আবৃত্তি সংসদ ফেনীর সভাপতি এখলাস উদ্দিন খোন্দকার বাবলু। রোটারীয়ার মুহিব উদ্দিন পৃথীবি, সোনাগাজী প্রেসক্লাব সভাপতি সৈয়দ মনির হোসেন, নাট্যকর্মী আলী আশ্রাফ রুবেল, নাহিদ হাসান, ফটো জার্নালিস্ট এসোসিয়েশন ফেনীর সভাপতি মোস্তফা কামাল বুলবুল, সাধারণ সম্পাদক জুলহাস তালুকদার প্রথম আলো বন্ধু সভার সাধারণ সম্পাদক রহমত উল্লাহ সুমনসহ আরো অনেকে।
মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, ‘সেলিম আল দীন” স্মৃতি পরিষদ ফেনী জেলার “সেলিম আল দীন শিল্প ও সাংস্কৃতিক মেলায় “উল্লাস” নামে লটারী টিকেট সেলিম আল দীন মেলার নামকরণে বিক্রয় করে জুয়ার আসর শুরু করা হয়। এবং এ লটারী রিক্সা, ভ্যানগাড়ী ও সি.এন.জি অটো রিক্সায় প্রকাশ্যে মাইকিং করে বিক্রি হয় পুরো জেলায়। এ ছাড়াও মেলায় নৃত্যের চলে অশ্লীল নৃত্য প্রদর্শন। যা নিন্দনীয় কাজ। সেলিম আল দীনের মত মহান মানুষকে নিয়ে জুয়ার বানিজ্য করায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছে বক্তারা। বক্তারা আরো  বলেন, সেলিম আল দীনের নামে মেলা হলেও এখানে তাঁর শিল্পকর্ম প্রদর্শনের নেই কোন আয়োজন। বরং র‌্যাফেল ড্র এর নামে চলছে কোটি টাকার বাণিজ্য।
স্মারকলিপি প্রদনের সময় ফেনীর জেলা প্রশাসক মনোজ কুমার রায় বলেন,শর্ত সাপেক্ষ মেলার অনুমতি দেয়া হয়েছিল। এখন তার ব্যত্তয় ঘটছে। ইতোমধ্যেই আয়োজকদের আলটিমেটাম দেয়া হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *