ফেনীতে অপহৃত ছাত্রী রাঙ্গামাটিতে ২০দিন পর উদ্ধার

নিজস্ব প্রতিনিধি,১৮ আগস্ট

ফেনী থেকে অপহরণের ২০ দিন পর পার্বত্য রাঙ্গামাটির নানিয়ার চর এলাকা থেকে এক মাদরাসায ছাত্রীকে (১৬) উদ্ধার করেছে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। অপহরণের জড়িত থাকার অভিযোগে এমদাদুল হক মামুন নামের এক যুবককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। মামুন ফেনী সদর উপজেলার শর্শদি ইউনিয়নের দেবীপুর গ্রমের বাসিন্দা।

 

পিবিআই ফেনীর পরিদর্শক মোহাম্মদ শাহআলম জানান, ফেনীর স্থানীয় একটি মাদরাসায় ৯ম শ্রেণির ছাত্রীটিকে নানাভাবে উত্যক্ত করতো বখাটে যুবক মামুন। ছাত্রীটি বিয়ের প্রস্তাবে সাড়া না দেওয়ায় গত ২৬ জুলাই সন্ধ্যায় অপহরণ করে প্রথমে ঢাকায় নিয়ে যায়। সেখান থেকে ছাত্রীটিকে খুলনা নিয়ে যায়। পরে ছাত্রীটিকে পার্বত্য রাঙ্গামাটির নানিয়ার চর উপজেলার বুড়িরঘাট এলাকায় নিয়ে যায়। অপহরণের পর ওই ছাত্রীর বাবা বাদি হয়ে ফেনীর আদালতে মামলা করেন। আদালত মামলাটি রেকর্ড করার জন্য ফেনী মডেল থানায় প্রেরণ ও তদন্তের দায়িত্ব পিবিআইকে দেয়।

 

 

শাহআলম আরো জানান, প্রযুক্তির মাধ্যমে মামুনের অবস্থান নিধারণ করে রবিবার সন্ধ্যায় পার্বত্য রাঙ্গামাটির নানিয়ার চর উপজেলার বুড়িরঘাট এলাকায় অভিযান চালিয়ে অপহৃত ছাত্রীকে উদ্ধার করে পিবিআই। এসময় মামুমকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। সোমবার সকালে ফেনী জেনারেল হাসপাতালে ওই ছাত্রীর শারিরীক পরীক্ষা সম্পন্ন ও আদালতে ২২ ধারায় জবানবন্দি গ্রহন করা হয়েছে। বিকেলে ওই যুবক এমদাদুল হক মামুন ফেনীর জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম মো. জাকির হোসাইনের আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করেন। আদালত পরে মামুনকে জেল-হাজতে প্রেরণ এবং কিশোরীকে তার বাবার হেফাজতে হস্তান্তর করে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *