দাগনভূঞা মেয়র পদে ৪,কাউন্সিলর পদে ৩৬ জনের মনোনয়নপত্র দাখিল

সংবাদদাতা, ২১ ডিসেম্বর

আসন্ন দাগনভূঞা পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে ৪ জন প্রার্থী এবং কাউন্সিলর পদে ৩৬ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন।
আজ রোববার (২০ ডিসেম্বর)মনোনয়ন জমা দেয়ার শেষ দিন ছিল। শেষ দিনে মেয়র পদে আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী ওমর ফারুক খাঁন,বিএনপি মনোনীত মেয়র প্রার্থী কাজী সাইফুর রহমান স্বপন,জাতীয় পার্টি মনোনীত মেয়র প্রার্থী বিনোদ বিহারী ভৌমিক এবং স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী তারেক আজিজ খাঁন মেয়র পদের জন্য মনোনয়ন জমা দেন।

এছাড়া কাউন্সিলর পদে ১ নং ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগ সমর্থিত বর্তমান কাউন্সিলর জাকির হোসেন, শাহ আলম, মোঃ জাফর উদ্দিন,মোঃ ইব্রাহিম, আবুল কালাম, জাকির হোসেন ও মোঃ আলাউদ্দিন।

২ নং ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগ সমর্থিত বর্তমান কাউন্সিলর সাইফুল ইসলাম,শহীদ উল্লাহ,আজিজুল হক রাসেল, ইউসুফ আলী খাঁন,এম নুরুল ইসলাম বাবলু ও মোঃ সাইফুল ইসলাম।
৩ নং ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগ সমর্থিত বর্তমান কাউন্সিলর নুরুল হুদা সেলিম,ইমাম উদ্দিন চৌধুরি, জিয়া উদ্দিন মাসুদ, মহি উদ্দিন, অলি আহমেদ ও মোঃ কামরুজ্জামান।

৪ নং ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগ সমর্থিত বর্তমান কাউন্সিলর আব্দুল কুদ্দুস মিজান,জসিম উদ্দিন ও আব্দুর রহিম (সাইফুল ইসলাম)।
৫ নং ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগ সমর্থিত একরামুল হক।
৬ নং ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগ সমর্থিত বর্তমান কাউন্সিলর মোঃ হানিফ।
৭ নং ওয়ার্ডে বর্তমান কাউন্সিলর আওয়ামী লীগ সমর্থিত কামরুল হাসান ও মোঃ ইয়াছিন।

৮ নং ওয়ার্ডে বর্তমান কাউন্সিলর জিয়াউল হক, কামরুল ইসলাম ক্লাইভ,আওয়ামী লীগ সমর্থিত ছালা উদ্দিন রুবেল, জেসমিন আক্তার লাকি ও গোলাম জিলানী।
৯ নং ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগ সমর্থিত মোহাম্মদ ফারুক।

সংরক্ষিত কাউন্সিলর প্রার্থী (১,২ ও ৩)১ নং ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগ সমর্থিত আয়েশা আক্তার নাজু,(৪,৫ ও ৬)২ নং ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগ সমর্থিত শাহনাজ আক্তার এবং (৭,৮ ও ৯) ৩ নং ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগ সমর্থিত জাহানারা বেগম এবং জাতীয় পার্টি সমর্থিত কোহিনুর আক্তার।

জেলা নির্বাচন অফিসার ও রির্টানিং অফিসার নাসির উদ্দিন পাটোয়ারি জানান, আসন্ন দাগনভূঞা পৌরসভা নির্বাচনে ২০ ডিসেম্বর মনোনয়নপক্র জমাদানের শেষ দিন ছিল। এ পর্যন্ত মেয়র পদে ৪ জন ও কাউন্সিলর পদে ৩২ জন এবং সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে ৪ জনসহ মোট ৪০ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দেন। আগামী ২২ ডিসেম্বর যাচাই বাচাই ও ২৯ ডিসেম্বর প্রত্যাহারের শেষ দিন,প্রতিক বরাদ্ধ ৩০ ডিসেম্বর এবং ১৬ জানুয়ারি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *